• শিরোনাম

    সাংবাদিকদের সুরক্ষা দিতে সম্পূর্ণ বিফল অসম সরকার!

    অমৃতস্য সাগরিকা, গুয়াহাটি, অসম, ভারত | ০৯ আগস্ট ২০২০


    সাংবাদিকদের সুরক্ষা দিতে সম্পূর্ণ বিফল অসম সরকার!

    অসম সরকার সাংবাদিকের নিরাপত্তার দিকটি এখনো পর্যন্ত সুনিশ্চিত করতে পারেননি।

    একজন সাংবাদিককে তাঁরই কার্যালয়ে মেরে ফেলে রাখা হচ্ছে; অথচ সরকার পক্ষের কোন টু-শব্দটি নেই?


    ঘটনায় তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছেন তিনসুকিয়ারই এমএলএ শ্রীযুক্ত সঞ্জয় কিষান।

    তিনি বলেন, “এটি অত্যন্ত দুঃখজনক একটি বিষয়। আমার পরিবারের খুব কাছের মানুষ ছিল বিজেন। তাঁর মৃত্যু মেনে নেয়া যায় না। হত্যাকারী যেই হোক, শীঘ্রই তার বিরুদ্ধে আইনী পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান জানাচ্ছি। অত্যন্ত দুঃখজনকভাবে আমরা তাঁকে হারিয়েছি। এছাড়াও তাঁর পরিবারের দায়িত্বের কথাটাও এসে পড়ছে। বিজেনের ছিল দুটো সন্তান। তাঁর পরিবারের প্রতি আমাদের দায়িত্ব আছে”।


    এ মুহূর্তে জানা যাচ্ছে, বিজেনকে হত্যা করেছে আচলতি নামক এক যুবতী। তাঁর সঙ্গে সম্পর্ক ভালোই ছিল বিজেনের। তবে ঠিক কোন কারণে এই হত্যাকাণ্ড, তা এখনো জানা যায়নি।

    ৫ দিনের পুলিশি জিম্মায় নেয়া হয়েছে যুবতীকে।


    শনিবার সাংবাদিক বিজেন দীপের আত্মার শান্তি কামনায় প্রদীপ জ্বালানো হয় শহরে।

    উল্লেখ্য যে, তিনসুকিয়া জেলার ন-পুখুরি জ্যোতিনগরস্থিত কার্যালয়ে উক্ত সাংবাদিকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

    ‘দিন প্ৰতিদিন নৰ্থ- ইষ্ট’ নামক নিউজ পোর্টেলের কার্যালয়ে অর্ধগলিত অবস্থায় উদ্ধার হয়েছে তাঁর মৃতদেহ।

    দেহের বিভিন্ন জায়গায় বেশ কয়েকটি আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। বিশেষ করে মুখে ছিল আঘাতের দাগ।

    ‘‘দিন প্ৰতিদিন নৰ্থ- ইষ্ট’ পোর্টেলের পাশাপাশি নিউজ টাইম, অসমের তিনসুকিয়ার সাংবাদিক হিসেবে কর্মরত ছিলেন বিজেন দীপ।

    বাড়িতে তাঁর দুটো সন্তানের পাশাপাশি আছেন মা এবং স্ত্রী!

    ইতিমধ্যে তদন্ত শুরু হয়েছে ঘটনার।

    ঘটনায় শোকে ভেঙে পড়েছেন আসাম প্রেস করেন্সপন্ডেন্টস ইউনিয়নের তিনসুকিয়া জেলা সমিতির সকল সদস্য।

    সংবাদ মাধ্যমে প্রেরণ করা এক বিজ্ঞপ্তিতে সাংবাদিক সংগঠনটির নেতৃত্ব লিখেছেন যে, “রাজ্যে দিনে দিনে বৃদ্ধি পাওয়া সাংবাদিক নির্যাতন এবং হত্যাকাণ্ড এক অশুভ সংকেত নিয়ে এসেছে। বিজেন দীপের নৃশংস হত্যাকাণ্ডই হোক শেষ সাংবাদিক হত্যার ঘটনা”।

    উল্লেখ্য অসমে সাংবাদিক নির্যাতন, হত্যার ঘটনা এটিই প্রথম নয়। বিভিন্নস্থানে, বিভিন্নভাবে শারীরিক- মানসিক নির্যাতনের সম্মুখীন হতে হচ্ছে সাংবাদিকদের!

    সর্বানন্দ সনোয়াল নেতৃত্বাধীন সরকারের গজগতি সাংবাদিকদের ভবিষ্যৎ অন্ধকারের দিকে আরো ঠেলে দিচ্ছে!

    Facebook Comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫১৬
    ১৭১৮১৯২০২১২২২৩
    ২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
    ৩১