• শিরোনাম

    সাংবাদিক ও সাহিত্যিক মোঃ সরওয়ার হক চৌধুরীর করোণাকালের কবিতা “কলা পাতায় গরম ভাত”।

    | ১১ জুলাই ২০২০


    সাংবাদিক ও সাহিত্যিক মোঃ সরওয়ার হক চৌধুরীর করোণাকালের কবিতা “কলা পাতায় গরম ভাত”।

    কলা পাতায় গরম ভাত
    ——————–
    ১.
    কলা পাতায় মোটা চালের
    সবার প্রিয় গরম ভাত,
    মাছে ভাতে বাঙালি
    ভাত ছাড়া কাটে না একটি রাত।

    মানুষে মানুষে বৈষম্য দুর করতে
    চাই মানুষের প্রতি ভালবাসা,
    খিদের মাঝে ধূসর জীবন
    দুঃখ মোচনে কলা পাতায় গরম ভাতের আশা।


    গরম ভাতের ধোঁযা উঠুক
    বাঙালির ঘরে ঘরে,
    করোণা আম্পানের প্রভাব রুখে দিতে
    সহাযোগিতার হাত বাড়িয়ে দাও চরে চরে।

    শ্রমিকের কপালে ভাঁজ
    প্রতিদিন নেই কাজ,
    ঘরে খিদে, বাইরে করোণা
    মাথায় পড়েছে বাজ।


    কলা পাতায় গরম ভাত
    আমাদের ঐতিহ্য, আমাদের ভালবাসা
    গরম ভাতের ধোঁযা উঠুক
    সবার ঘরে, সকলের প্রত্যাশা।

    ভাবনায় বিশ্ব মহামারীতে হাজারো শহীদ
    করোণাকাল হবেই একদিন শেষ,
    মানতে হবে স্বাস্থ্যবিধি
    হৃদয় জুড়ে রয়েছে প্রিয় বাংলাদেশ।


    ধনী গরিব সবাই মিলে
    সবাই সবার পাশে,
    চেতনায় দেশপ্রেম, মানুষের প্রতি ভালবাসা
    সকলের নিঃশ্বাসে প্রশ্বাসে।

    ফসলের মাঠ, গোলা ভরা ধান
    আমরা সবাই বাধাহীন,
    কলা পাতায় গরম ভাত
    সুখ শান্তিতে কাঁটবে প্রতিদিন।

    ঝিঁ ঝিঁ পোকার শব্দ, জোনাকীর আলো
    কলা পাতায় গরম ভাত
    খিদের সামনে মৃত্যু ভয়ও হারিয়ে যায়
    কেটে যাবে অন্ধকার রাত।

    ঐতিহ্য মানুষের হৃদয়কে আলোকিত করে
    জাগ্রত করে বিবেককে,
    আকাশে অনেক তারা
    পুর্ণিমার রাতে জোছনা মেখে।

    ২.
    আলোকিত মন, আলোকিত মানুষ
    যত সুখ শান্তি রয়েছে কুঁড়ে ঘরে,
    সংকীর্ণ মন, বিবেকহীন মানুষ
    দালানে অশান্তির বিছানা যেন উত্তপ্ত বালুচরে।

    মানুষের শুভবোধ, ন্যায়বোধ
    নিয়ে যাবে বহুদুর,
    লোভী, অন্যায়কারী মানুষের
    হারিয়ে যাবে সুর।

    সততাকে খুঁজতে হবে না রয়েছে হৃদয়ে
    চাই প্রবল ইচ্ছাশক্তি,
    সকল হিংসার বাঁধা পেরিয়ে
    রয়েছে ভালবাসায় মুক্তি।

    জীবনের কঠিণ সময়ে
    সত্যবাদীতা মানুষকে করে মুগ্ধ,
    যতই আসুক বাঁধা বিপত্তি
    এই পথ শুদ্ধ।

    ৩.
    আমি চলবো আমার পথে
    হাজার মানুষের সাথে,
    মানুষের ভিড়ে হারিয়ে যাবো
    কোন এক দুঃখের রাতে।

    তুমি বলবে অহমিকায়
    কত দেখেছি সততা,
    না খেয়ে মরবে
    বাড়বে যখন খিদের তীব্রতা।

    আমি চাই না কিছু
    শুধু কলা পাতায় গরম ভাত,
    তুমি বলবে অহংকারে
    প্লেটে পোলাও মাংস ভরা পাত।

    ৪.
    চোখের পলকে ফিরে আসে
    কাঙ্খিত সেই দিন,
    কখনও চিক চিক রোদ্দুর
    কখনও বৃষ্টি রিম ঝিম।

    হাসি কান্নার মাঝে
    ফিরে আসে সেই দিন.
    কখনও কর্মহীন জীবন, কখনও কর্মবিমূখ জীবন
    হয়েছে অনেক ঋণ।

    সুখের স্মৃতি বেদনার স্মৃতি
    রয়েছে হৃদয়ের মনিকোঠায়,
    ভালবাসা স্বপ্ন দেখায়
    তাইতো দিন যায় রাত যায়।

    মুক্ত আকাশে পাখি উড়ে
    নেই কোন চিন্তা,
    দুঃস্বপ্নের অবয়বে ঘেরা আগন্তুক
    অনাকাঙ্খিত সংকীর্ণতা।

    জীবন মৃত্যুর মাঝামাঝি
    সুন্দরের মাঝে প্রতিনিয়ত জেগে ওঠা,
    মৃদু বাতাসে লাল সাদা গোলাপগুলো নড়েচড়ে
    স্নিগ্ধ সুবাসে সুখ শান্তির খানিকটা।

    মোরগের ডাক পাখির কিচিমিচির
    আরও একটি শিশির সিক্ত ভোর,
    জীবন যুদ্ধে সোনালি দিন
    খুলে দাও স্বপ্নের দোর।

    জগতে কেউ মানুষকে ভালবাসে
    আবার অর্জিত আলাদা অভিজ্ঞতা,
    বিনিময়ে হয়ে যায় তার
    কাজে নেই কোন সততা।

    শ্রাবণের অবিরাম বৃষ্টি ধারায়
    দোয়েল ভিজে করে আনন্দ উল্লাস,
    বৃষ্টিতে ভিজে একেবারেই নুব্জ
    চোখের পাতা বেয়ে পড়ছে জল মনটি উদাস।

     

    ***************

    মোঃ সরওয়ার হক চৌধুরী

    সাংবাদিক ও সাহিত্যিক

    Facebook Comments

    বিষয় :

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫১৬
    ১৭১৮১৯২০২১২২২৩
    ২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
    ৩১