• শিরোনাম

    পরাজয় দিয়ে আইপিএল মৌসুম শুরু করলো ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স

    সুজিত মন্ডল | ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০


    পরাজয় দিয়ে আইপিএল মৌসুম শুরু করলো ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স

    নতুন আসরের প্রথম ম্যাচ পরাজয় দিয়ে শুরু করলো গত আসরের আইপিএল চ্যাম্পিয়ন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের ত্রয়োদশ তম মৌসুমের উদ্বোধনী খেলায় মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বিরুদ্ধে পাঁচ উইকেটের বড় জয় তুলে নিয়েছে চেন্নাই সুপার কিংস। দীর্ঘ বিরতির পর মাঠে নেমে শুরুটা জয় দিয়ে রাঙালেন চেন্নাই সুপার কিংস এর অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি।

    গতকাল রাতে সংযুক্ত আরব আমিরাতের রাজধানী আবুধাবির শেখ আবু জায়েদ স্টেডিয়ামে আইপিএল টুর্নামেন্ট ২০২০ এর উদ্বোধনী ম্যাচে একে অপরের মুখোমুখি হয় চেন্নাই সুপার কিংস এবং মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। গত আসরের ফাইনালে চেন্নাইকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হলেও, গতকালকের ম্যাচে তাদের কাছে ৫ উইকেটে পরাজিত হয়েছে মুম্বাই।


    উল্লেখ্য, সারাবিশ্বে ছড়িয়ে পড়া মহামারী করোনাভাইরাস সংক্রমণের দিক থেকে ভারত দ্বিতীয় অবস্থানে থাকার কারণে আইপিএল এর এবারের আসর আরব আমিরাতে আয়োজন করা হয়েছে।

    টস নামক ভাগ্য পরীক্ষায় জয়ী হয়ে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সকে ব্যাটিং করার আহবান জানায় চেন্নাই সুপার কিংস এর অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি।


    ব্যাটিং এ নেমে শুরুটা ভালোই করেন দুই ওপেনার রোহিত শর্মা এবং কুইন্টন ডি কক। রোহিত শর্মা ইনিংস এর প্রথম ওভারের প্রথম বলকে চারে পরিণত করলে ম্যাচে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়।

    রোহিত শর্মার সাথে তাল মিলিয়ে দারুণভাবে রানের গতি এগিয়ে নিয়ে যেতে থাকেন কুইন্টন ডি কক। ৫ম ওভারে দলীয় ৪৬ রানের সময় পিজুশ চাওলার বলে স্যাম কারানের হাতে ক্যাচ দিয়ে ১২ রান করে সাজঘরে ফেরেন রোহিত শর্মা। এরপরের ওভারে স্যাম কারানের প্রথম বলে শেন ওয়াটসনের হাতে ক্যাচ দিয়ে ৩৩ রান করে আউট হয়ে যান কুইন্টন ডি কক। পরপর দুইজন ওপেনার আউট হয়ে যাওয়ায় মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স কিছুটা পিছিয়ে পড়ে।


    এরপর সুরাইয়া কুমার যাদবকে সাথে নিয়ে একটি ভালো জুটি গড়ার চেষ্টা করেন সৌরভ তিওয়ারি। কিন্তু সুরাইয়া কুমার যাদব ব্যক্তিগত ১৭ রানের সময় দিপক চাহারের বলে ক্যাচ আউট হয়ে যাওয়ায় সেটা আর সম্ভব হয় নি। এবার হার্দিক পান্ডিয়া যুক্ত হন সৌরভ তিওয়ারির সাথে। কিন্তু ১১ তম ওভারের সময় ব্যক্তিগত ৪২ রান করে বাউন্ডারিতে ফাফ ডু প্লেসিস এর দুর্দান্ত ক্যাচের শিকার হয়ে সাজঘরে ফেরেন সৌরভ তিওয়ারি।

    তারপর আর কোনো ব্যাটসম্যান তেমন বড় সংগ্রহ করতে পারেন নি। তাই নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে তাদের সংগ্রহ দাঁড়ায় ৯ উইকেট হারিয়ে ১৬২ রান।

    মুম্বাইয়ের দেওয়া ১৬২ রানের বিপরীতে খেলতে নেমে শুরুতেই হোঁচট খায় চেন্নাই। দলীয় ৬ রানের মাথায় দুইজন ওপেনার মুরালি বিজয় এবং শেন ওয়াটসনকে হারায় তারা। দুইজনই আউট হন এলবিডব্লিউর ফাঁদে পড়ে। কিন্তু পরবর্তী উইকেট জুটি ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দেয়। ফাফ ডু প্লেসিসের ৫৮ রান এবং আম্বাতি রাইডুর দলীয় সর্বোচ্চ ৭১ রানের ডানায় ভর করে জয়ের কিনারায় পৌঁছে যায় চেন্নাই। তাদের দুইজনের বিধ্বংসী ব্যাটিংয়ে নাস্তানাবুদ হয়ে পড়েন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বোলাররা।

    ১৬ তম ওভারের সময় রাহুল চাহারের বলে আম্বাতি রাইডু আউট হয়ে যাওয়ার পর ব্যাটিংয়ে আসেন রবিন্দ্র জাদেজা। তবে তার ইনিংস বেশিক্ষণ স্থায়ী হয় নি। মাত্র ১০ রান করে ক্রুনাল পান্ডিয়ার বলে আউট হয়ে যান জাদেজা।

    গতকালকের ম্যাচে সব থেকে বড় চমক সৃষ্টি করেন জাদেজার পরে ব্যাটিং করতে নামা স্যাম কারান। মাত্র ৬ বল থেকে ১৮ রানের এক ঝোড়ো ইনিংস উপহার দিয়ে দলকে জয়ের বন্দরে পৌঁছে দিয়ে যান তিনি। এরপর ফাফ ডু প্লেসিস এবং অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি শেষ ওভারের ৪ বল হাতে রেখেই ৫ উইকেটের সহজ জয় তুলে নেন।

    এই জয়ের সাথে অধিনায়ক ধোনির সাফল্যের মুকুটে নতুন পালক যুক্ত হয়েছে। কারণ চেন্নাই সুপার কিংস দলের অধিনায়ক হিসেবে ১০০ তম জয় নিশ্চিত করেছেন তিনি।

    Facebook Comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    বিদায় ফুটবল ঈশ্বর!

    ২৫ নভেম্বর ২০২০

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫
    ১৬১৭১৮১৯২০২১২২
    ২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
    ৩০৩১