• শিরোনাম

    ‘আমি একা নই – প্রবীণ কলম বন্ধু’ চিঠি: ০৬

    শতাব্দীর বিপর্যয় : সুবাস চন্দ্র সাহা রায়

    | ১৮ জুলাই ২০২০


    শতাব্দীর বিপর্যয় :  সুবাস চন্দ্র সাহা রায়

    ‘আমি একা নই – প্রবীণ কলম বন্ধু’ চিঠি: ০৬

    লেখক পরিচিত :সুবাস চন্দ্র সাহা রায় একজন রিটায়ার্ড সরকারী প্রকৌশলী। গল্প করা, পেপার পড়া তার সখ। ঢাকার মোহাম্মদপুরে নিজ বাসভবনে পরিবারের সাথে বর্তমানে অবস্থান করছেন।


    প্রতি শতাব্দীতেই বিশ্বে কোন না কোন বিপর্যয় আসছে।

    ২০২০ সালে কোভিড ১৯ বিশ্বকে এমনভাবে নাড়া দিয়েছে, এখন পর্যন্ত বিশ্বে প্রায় ৪৭০০০০ লোকের মৃত্যু হয়েছে। বিশ্ব অর্থনীতি একেবারে ভেঙ্গে পরেছে, এর প্রভাব, স্থায়িত্ব ও ব্যাপকতা নির্ণয় করা এ মুহূর্তে সম্ভব না। সমাজ ব্যবস্থায় চরম অস্থিরতা পরিলক্ষিত হচ্ছে, যার ফলে সমাজ থেকে মানবিক মূল্যবোধ তলানীতে এসে ঠেকেছে।


    এমনকি পরিবাবরের সদস্যদের মধ্যেও নানারকম মতবিরোধ দেখা দিচ্ছে। এমনকি এর ফলে ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে পরিবাবের সদস্যগন। শারীরিক নানা অসুস্থতার মধ্যে কোভিড ভাইরাস আক্রান্তদের বেঁচে থাকার সম্ভাবনা ক্ষীণ।

    এই মহামারীর পর স্বাভাবিক অবস্থা ভবিষ্যতে ফিরলেও সমাজে এর প্রভাব থেকে যাবে। একদিকে যেমন বয়োজ্যেষ্ঠরা ভাবছে জীবনের শেষ সময়ে এধরনের মারাত্মক বিপর্যয়ের মুখোমুখি হতে হয়েছে।


    অন্যদিকে নতুন প্রজন্মের ভিতরে আক্ষেপ ও হতাশা জন্ম নিয়েছে যে তারা এমন সময়ে জন্মগ্রহণ করেছে যে তাদের ভবিষ্যৎ আশঙ্কাজনক হয়ে পরেছে।

    একজন প্রবীণ হিসেবে আমার নিজের ব্যক্তিগত জীবনেও কিছু হতাশা, মানসিক বিপর্যয়ের মুখোমুখি হতে হচ্ছে। অবসর জীবনে একটু খোলা মনে, মুক্ত জায়গায় হাঁটাহাঁটি, মানসিক স্বাধীনতাটাই একমাত্র সম্বল হয়ে উঠে প্রবীণদের জন্য।

    ভয়াল করোনায় ঘরবন্দি হয়ে আমার এবং আমার সহধর্মিণীর মত লক্ষ লক্ষ মানুষের প্রবীণ জীবনের সৌন্দর্যটুকু হারাতে বসেছে প্রায়। অন্যদিকে আমার যুবা সন্তানেরা তাদের ভবিষ্যৎ এবং জিবনভিত্তিক পরিকল্পনাগুলো নিয়ে বেশ চিন্তিত হয়ে পরেছে।

    সামগ্রিকভাবে ভয়াল করোনা স্বাভাবিক জীবনধারাকে পরিবর্তন করে দিয়েছে। এখন হয়তোবা আমাদেরকে একটু ভিন্নভাবে চিন্তা করতে হবে, যাতে করে আমরা জীবনের যেসব ধনাত্মক পরিবর্তন এসেছে তা নিয়ে মনযোগী হতে পারি। অন্যথা সর্বদা খারাপ প্রভাব গুলো নিয়ে চিন্তায় মগ্ন থাকলে জীবন অতিমাত্রায় বিপর্যস্ত হয়ে পরবে।

    বরং করোনার কারনে এই অস্বাভাবিক পরিবর্তিত পরিস্থিতি থেকে আমরা যদি কিছু ভাল শিক্ষা নিতে পারি এবং জীবনের মূলধারায় কিছু পরিবর্তন করে জীবনদর্শনকে আরো শক্তিশালী করে তুলতে পারি, তবে ভবিষ্যতে করোনামুক্ত পৃথিবীতে হয়তো আমরা আরো ভাল মানুষ হয়ে উঠতে পারব এবং নিজের, পরিবারবর্গের ও সকল মানবজাতির কল্যাণে সহমর্মিতার সহিত কল্যাণময় কাজ করে যেতে পারব অলে আশা করি।

    Facebook Comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫
    ১৬১৭১৮১৯২০২১২২
    ২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
    ৩০৩১